topজাতীয়

সেন্টমার্টিন থেকে ছেড়ে আসা জাহাজ ভাসছে সাগরে, পর্যটকদের বাঁচার আকুতি

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটনেট: সেন্টমার্টিন থেকে প্রায় ১ হাজার ৩০০ পর্যটক নিয়ে বিকেল ৩টায় ছেড়ে আসা ‘বে ওয়ান জাহাজ’ ১৪ ঘণ্টা পেরলেও এখনও কক্সবাজার পৌঁছেনি। সাগরে ভাসছে জাহাজটি, এতে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন পর্যটকরা।।
মঙ্গলবার (২০ ডিসেম্বর) বিকেল সাড়ে ৩টায় রওনা দেওয়া ১৩ শতাধিক পর্যটকবাহী জাহাজটি রাত সাড়ে ৯টার দিকে কক্সবাজার পৌঁছানোর কথা থাকলেও এখনও তীরে ভেড়েনি জাহাজটি।

জাহাজে থাকা পর্যটকরা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে পোস্ট করে জানান, জাহাজের ত্রুটির কারণে ধীরগতি ও তাদের দুর্ভোগের কথা। উঠে এসেছে কর্তৃপক্ষের অব্যবস্থাপনার নানা বিষয়ও।

এদিকে মঙ্গলবার কক্সবাজার থেকে সেন্টমার্টিন যাওয়ার পথে ইঞ্জিন ক্রুটি দেখা দিলে পরে ‘এমবি বে-ওয়ান নামের জাহাজে’ তাদের সেন্টমার্টিন নেওয়া হয়। এরপর মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে সেন্টমার্টিন থেকে এমবি বে-ওয়ানের মাধ্যমে ১ হাজার ৩০০ পর্যটক নিয়ে কক্সবাজারের উদ্দেশ্যে রওনা হয়। জাহাজে ওঠার কিছুক্ষণ পরই আটকা পড়ে জাহাজটি। প্রায় ১৪ ঘণ্টা সাগরে ভেসে থাকার কারণে নানা বিড়ম্বনা ও দুর্ভোগ পার করেছেন এসব যাত্রী।

ট্যুর অপারেটর জসিম উদ্দিন শুভ প্রশাসনের হেল্প চেয়ে তার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে লিখেছেন, ‘আমাদের বাঁচান। একদিকে জাহাজে পথে পথে হয়রানি অন্য দিকে বাস মিস করাই মধ্যবিত্ত পরিবারদের কান্না দেখে নিজের চোখের পানি চলে আসে। তারমধ্যে অফিস থেকে বস দিচ্ছে বকা যেমনি হোক চাকরি বাঁচাতে আগামী কালকে সকাল দশটার মধ্যে অফিসে হাজির হতে হবে। কিন্তু আমরা এখনও সাগরে ভাসতেছি। দেখার কেউ নাই। নাই কোনো খাবার। দোকানপাট বন্ধ। কর্ণফুলী এক্সপ্রেস ও বার আউলিয়া নাম দিয়ে বুকিং নিয়ে দুই শিপের যাত্রী এক শিপ করে অর্থাৎ বে ওয়ান শিপে করে কয়েকদিন ধরে বে ওয়ানকে হাইলাইট করতে যাওয়া আসা শুরু করছে। কোম্পানি তারই ধারাবাহিকতায় কবলে পড়ে ভ্রমণে আসা আজ প্রায় ২ হাজার পর্যটকের বাস মিস হয়েছে। এর দায়ভার কে নেবে, কেউ কি বলতে পারবেন?’

জাহাজে থাকা পর্যটকরা জানান, এ বছর টেকনাফ থেকে জাহাজ চলাচল বন্ধ থাকায় বিকল্প হিসেবে কক্সবাজার থেকে কর্ণফুলী নামক একটি জাহাজ চলাচল করে। পর্যটক মৌসুম হাওয়ায় পর্যটক বেশি হাওয়ায় কর্ণফুলির পরিবর্তে ‘বে ওয়ান জাহাজ’ চলাচল করে। এই জাহাজ ভ্রমণ রীতিমতো দুর্ভোগ হয়ে উঠেছে।

এ বিষয়ে জাহাজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করলেও তাদের কোন সাড়া পাওয়া যায়নি।

Related Articles

Back to top button