হাসপাতালে বন্যার পানি, মেক্সিকোয় ১৭ রোগীর মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মেক্সিকোয় একটি হাসপাতালে বন্যার পানি ঢুকে অন্তত ১৭ রোগীর মৃত্যু হয়েছে। মৃতদের মধ্যে কয়েকজন করোনা রোগীও রয়েছেন। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার কেন্দ্রীয় হিদালগো রাজ্যের একটি হাসপাতালে এই ঘটনা ঘটে। খবর রয়টার্সের
খবরে বলা হয়েছে, ভারী বৃষ্টির কারণে একটি নদীর বাঁধ ফেটে যাওয়ায় তুলা শহরের হাসপাতালে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি ও বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ হয়ে যায়। মৃত্যু হওয়া করোনা রোগীদের অক্সিজেন থেরাপির মধ্যে রাখা হয়েছিল। উদ্ধারকারীরা প্রায় ৪০০ জন রোগীকে সরিয়ে নিয়েছে।
এদিকে রাজ্যের গভর্নরকে বহনকারী একটি নৌকা নদীতে ডুবে যায়। গভর্নর ওমর ফায়াদ পরে টুইট করেন জানান, তিনি ‘নিরাপদ ও সুস্থ’ রয়েছেন। ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় জরুরি কার্যক্রম পরিচালনা অব্যাহত রয়েছেন।দুর্যোগ মোকাবেলায় উদ্ধারকারী দলগুলোর পাশাপাশি সেনাবাহিনী কাজ করছে।

মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেস ম্যানুয়েল লোপেজ ওব্রাডর বলেছেন, হাসপাতালে মৃত্যুতে তিনি ‘অত্যন্ত দুঃখিত’। তিনি নিচু এলাকার বাসিন্দাদের আশ্রয়কেন্দ্রে চলে যেতে বা আত্মীয় বা বন্ধুদের সঙ্গে নিরাপদ স্থানে থাকার আহ্বান জানান।

হিদালগো রাজ্যজুড়ে ৩০ হাজারের বেশি মানুষ বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, মেক্সিকো সিটির উত্তরাঞ্চলীয় শহর ইকাটেপেকে বন্যায় দুইজন মারা গেছে।

বন্যার এই দুর্গতির মধ্যে দেশটিতে ৭ মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে। স্থানীয় রাজ্যের গভর্নর ভূমিকম্পকে বড় কোনো ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন।

print

Leave a Reply

সর্বশেষ