প্যারিস দেখল নেইমার যাদু

টাইমস আই বেঙ্গলী ডটনেট, ঢাকা: ফ্রেঞ্চ লিগ ওয়ানে গত অর্ধযুগেরও বেশি সময় ধরে রাজত্ব করছে প্যারিস সেইন্ট জার্মেই (পিএসজি)। কিন্তু ইউরোপ সেরার টুর্নামেন্ট উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে নিষ্প্রভ প্যারিস জায়ান্টরা। তাই আক্ষরিক অর্থেই বস্তার বস্তা টাকা খরচ করে নেইমার-এমবাপ্পেদের কিনে নেয় পিএসজি। তবে প্যারিসে গিয়ে প্রথম মৌসুমে পিএসজির ভক্ত-অনুরাগীদের মন রক্ষা করতে পারেনি তারা। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ২০১৮-১৯ মৌসুমের শুরুটাও হয় লিভারপুলের কাছে পরাজয়ে। বুধবার দ্বিতীয় ম্যাচে রেড স্টার বেলগ্রেডের মুখোমুখি হয় পিএসজি। এই ম্যাচে অবশ্য সমর্থকদের হতাশ করেননি নেইমার-কাভানি-এমবাপ্পেরা। বরং দুর্দান্ত খেলে থমাস টাচেলের দল এদিন ৬-১ গোলে বিধ্বস্ত করে রেড স্টার বেলগ্রেডকে।

ইউরোপ সেরার এই টুর্নামেন্টে বুধবার প্যারিসে আতিথ্য পায় রেড স্টার বেলগ্রেড। তারকা ফুটবলারে ঠাসা পিএসজির বিপক্ষে ম্যাচের শুরু থেকেই একের পর এক আক্রমণে দিশেহারা হয়ে পড়ে সার্বিয়ার ক্লাবটি। কিন্তু থমাস টাচেলের শিষ্যদের কোনো আক্রমণই যেন প্রতিপক্ষের জাল খুঁজে পাচ্ছিল না।

অবশেষে ম্যাচের ২০ মিনিটে আসে প্রথম সফলতা। ২৫ গজ দূর থেকে দুর্দান্ত ফ্রি-কিকে গোল করে পিএসজিকে প্রথম এগিয়ে দেন নেইমার। তার দুই মিনিট পরই স্বাগতিকদের গোল ব্যবধান দ্বিগুণ করেন এই ব্রাজিলিয়ান সুপারস্টার। কিলিয়ান এমবাপ্পের অ্যাসিস্টে গোল করেন তিনি।

বিরতিতে যাওয়ার আগে পিএসজির হয়ে আরও দুই গোল করেন দলের অভিজ্ঞ দুই তারকা এডিনসন কাভানি এবং অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া। উরুগুইয়ান স্ট্রাইকার কাভানি ৩৭ মিনিটে আর ৪১ মিনিটে গোল করেন আর্জেন্টাইন তারকা ডি মারিয়া।

দ্বিতীয়ার্ধেও দেখা যায় ম্যাচে পিএসজির একতরফা রাজত্ব। তবে এই সময়টাতে গোল প্রতিপক্ষের জালে জড়ানোর চেয়ে থমাস টাচেলের শিষ্যরা মিস করেন বেশি। ম্যাচের ৭০ মিনিটে আর প্রতিপক্ষের জাল পেতে ভুল হয়নি ফ্রান্সের কিলিয়ান এমবাপ্পের।

ম্যাচের বয়স যখন ৮১ মিনিট তখন নতুন মৌসুমের প্রথম হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন নেইমার। এবারও নান্দনিক এক ফ্রি-কিকে তুলনামূলক খর্ব শক্তির দল রেড স্টার বেলগ্রেডের জাল খুঁজে নেন সাবেক বার্সেলোনার এই সান্তোস ফরোয়ার্ড। সেই সঙ্গে প্রমাণ করলেন যেন কেন তিনি ইতিহাসের সবচেয়ে দামি ফুটবলার! দারুণ ফ্রি-কিকের গোলে প্যারিসের দর্শকদের মুগ্ধতায় ডুবান তিনি।

রেড স্টার বেলগ্রেডের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করে নতুন এক মাইলফলকও স্পর্শ করেন নেইমার। রিভালদোকে (২৭) ছাড়িয়ে ব্রাজিলের কিংবদন্তি কাকার রেকর্ডে ভাগ বসালেন তিনি। উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ব্রাজিলের এই দুই তারকার গোল এখন সমান ৩০টি। কাকাকে ছাড়িয়ে ইউরোপ সেরার এই টুর্নামেন্টে ব্রাজিলের জার্সিতে সর্বোচ্চ গোল করাটা এখন নেইমারের জন্য কেবলই সময়ের ব্যাপার।

বুধবার রেড স্টার বেলগ্রেডের হয়ে পিএসজির বিপক্ষে সান্ত্বনার একটি গোল করেন মার্কো মারিন। তবে দলের অবস্থান ‘সি’ গ্রুপের তলানীতেই। রেড স্টার বেলগ্রেডের পয়েন্ট মাত্র ১। তাদের সমান দুই ম্যাচ থেকে পিএসজির সংগ্রহে তিন পয়েন্ট।

সূত্র : বিবিসি।

print

Leave a Reply